মুক্তিযোদ্ধা-জসীমউদদীন

আমি একজন মুক্তি-যোদ্ধা, মৃত্যু পিছনে আগে, ভয়াল বিশাল নখর মেলিয়া দিবস রজনী জাগী । কখনো সে ধরে রেজাকার বেশ, কখনো সে খান-সেনা, কখনো সে ধরে ধর্ম লেবাস পশ্চিম হতে কেনা। […]

Read Article →

আট বছর আগের একদিন – জীবনানন্দ দাশ

শোনা গেল লাশকাটা ঘরে নিয়ে গেছে তারে; কাল রাতে—ফাল্গুনের রাতের আঁধারে যখন গিয়েছে ডুবে পঞ্চমীর চাঁদ মরিবার হল তার সাধ। বধু শুয়ে ছিল পাশে—শিশুটিও ছিল; প্রেম ছিল, আশা ছিল—জ্যোৎস্নায়—তবু সে […]

Read Article →

চলছি উধাও – জীবনানন্দ দাশ

চলছি উধাও, বল্গাহারা- ঝড়ের বেগে ছুটে শিকল কে সে বাঁধছে পায়ে! কোন্‌ সে ডাকাত ধরছে চেপে টুটি! -আঁধার আলোর সাগরশেষে প্রেতের মতো আসছে ভেসে! আমার দেহের ছায়ার মতো, জড়িয়ে আছে […]

Read Article →

হিন্দু-মুসলমান – জীবনানন্দ দাশ

মহামৈত্রীর বরদ-তীর্থে-পুণ্য ভারতপুরে পূজার ঘন্টা মিশিছে হরষে নমাজের সুরে-সুরে! আহ্নিক হেথা শুরু হয়ে যায় আজান বেলার মাঝে, মুয়াজ্জেনদের উদাস ধ্বনিটি গগনে গগনে বাজে, জপে ঈদগাতে তসবি ফকির, পূজারী মন্ত্র পড়ে, […]

Read Article →

সময়ের কাছে -জীবনানন্দ দাশ

সময়ের কাছে এসে সাক্ষ্য দিয়ে চ’লে যেতে হয় কী কাজ করেছি আর কী কথা ভেবেছি। সেই সব একদিন হয়তো বা কোনো এক সমুদ্রের পারে আজকের পরিচিত কোনো নীল আভার পাহাড়ে […]

Read Article →

টিউটোরিয়াল – জয় গোস্বামী

তোমাকে পেতেই হবে শতকরা অন্তত নব্বই (বা নব্বইয়ের বেশি) তোমাকে হতেই হবে একদম প্রথম তার বদলে মাত্র পঁচাশি! পাঁচটা নম্বর কম কেন? কেন কম? এই জন্য আমি রোজ মুখে রক্ত […]

Read Article →

আমাকে একটি কথা দাও -জীবনানন্দ দাশ

আমাকে একটি কথা দাও যা আকাশের মতো সহজ মহৎ বিশাল, গভীর; – সমস্ত ক্লান্ত হতাহত গৃহবলিভুকদের রক্তে মলিন ইতিহাসের অন্তর ধুয়ে চেনা হাতের মতন, আমি যাকে আবহমান কাল ভালোবেসে এসেছি […]

Read Article →

বৃষ্টি ভেজা বাংলা ভাষা-জয় গোস্বামী

কে মেয়েটি হঠাৎ প্রণাম করতে এলে ? মাথার ওপর হাত রাখিনি তোমার চেয়েও সসংকোচে এগিয়ে গেছি তোমায় ফেলে ময়লা চটি, ঘামের গন্ধ নোংরা গায়ে, হলভরা লোক, সবাই দেখছে তার মধ্যেও […]

Read Article →

মনে হয় একদিন-জীবনানন্দ দাশ

মনে হয় একদিন আকাশে শুকতারা দেখিব না আর ; দেখিব না হেলেঞ্চার ঝোপ থেকে একঝাড় জোনাকি কখন নিভে যায় – দেখিব না আর আমি এই পরিচিত বাঁশবন , শুঁকনো বাঁশের […]

Read Article →

তোমাকে – জীবনানন্দ দাশ

একদিন মনে হতো জলের মতন তুমি। সকালবেলার রোদে তোমার মুখের থেকে বিভা– অথবা দুপুরবেলা — বিকেলের আসন্ন আলোয়– চেয়ে আছে — চলে যায় — জলের প্রতিভা। মনে হতো তীরের উপরে […]

Read Article →